সকাল ৯:২৫ শনিবার ১৬ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ ৫ই রবিউল আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরি

হোম দেশ ‘ক্ষমতাসীন সময়ে যে যতো বড় বাটপার সে ততো সাকসেসফুল’

‘ক্ষমতাসীন সময়ে যে যতো বড় বাটপার সে ততো সাকসেসফুল’

লিখেছেন মামুন শেখ
Spread the love

ক্ষমতাসীন সময়ের রাজনীতিতে যে যতো বড় ভণ্ড, সে ততো বেশী ক্ষমতাশালী, যে যতো বড় বাটপার সে ততো বড় সাকসেস ফুল, যে যতো বড় অভিনেতা সে ততো বড় সাধুরুপধারী, যে যতো বড় চোর সে ততোই বেশী সৎজীবন ভাবধারী, যে যতো বেশী লুচ্চা সে ততো বড় চরিত্রবান সেজে বসে থাকে, যে যতো বড় মিথ্যুক সে ততো বেশী সত্যের বুলি ফোটাতে থাকে নাকে মুখ, যে যতো বড় ঠকবাজ সে ততো বড় আমানতদার সেজে বসে থাকে, যে অশিক্ষিত বর্বর সে ততো বেশী শিক্ষিতের ভাবধারী, যে যতো বড় চামচা সে ততোই কাছের লোক, যে যতো বড় মাদকসেবী সে ততো বেশী মাদক বিরোধী ভাব ধরে, যে যতো বড় ভীতু সে ততো বড়ই সাহসী সেজে থাকে, যে যতো বড় প্রতারক সে ততো বড় হাতেমতাই রূপধারী, যে যতো বড় ছলনাময়ী সে ততো বড় মেধাবী রূপধারী, আর যে যতো বেশী কর্মীদের সাথে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন সে ততো বড় কর্মীবান্ধব সেজে বসে থাকে।

সবশেষে দুঃসময়ে যারা ছিলোনা রাজপথে অথবা ফাঁকিবাজ অথবা সুযোগসন্ধানী তাদেরকেই বলা হয় ক্রিয়েটিভ এবং ক্লিন ইমেজধারী।

স্বৈরাচার এরশাদের সময় ছাত্ররাজনীতি থেকে বিদেশে পড়তে যাওয়া, বিরোধী দলের সময় উচ্চ শিক্ষার নামে দেশ বিদেশে সাপের গর্তে লুকিয়ে থাকা চূড়ান্ত ভাবে ১/১১ তে নেত্রীর পাশে থাকতে না চাওয়া কিংবা নিজেকে নিরাপদ রাখা প্রত্যেকটি অমানুষের চরিত্র এক এবং অভিন্ন। এরাই বর্তমানে ক্লিন ইমেজধারী এবং মেধাবী সেজে বসে আছে এবং বিপথে পরিচালনার চেষ্টা করছে। ওহে অমানুষের দল মধু খেয়ে চলে যাবি কিন্তু চাকটা ভাঙিস না তাইলে যারা মধু সংগ্রহ করে তারা আশ্রয়টুকুও হারাবে।

**ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সিদ্দিকী নাজমুল আলমের ফেসবুক থেকে নেয়া। সোমবার (১৪ সেপ্টেম্বর) দেয়া তার পোস্টটি হুবহু তুলে ধরা হয়েছে।

You may also like

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More