সকাল ১১:৩২ শুক্রবার ১০ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ ১লা জমাদিউল আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরি

হোম প্রযুক্তি ফেসবুক থেক‌ে আর্থিক সহায়তা পেতে যা করতে হবে

ফেসবুক থেক‌ে আর্থিক সহায়তা পেতে যা করতে হবে

লিখেছেন মামুন শেখ
Spread the love

করোনাভাইরাসের কারণে সৃষ্টি হওয়া অর্থনৈতিক সংকটে ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীদের পাশে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে ফেসবুক। এর ধারাবাহিকতায় একটি ‘গ্রান্ট প্রোগ্রাম’ চালু করেছে প্রতিষ্ঠানটি।

এক নিবন্ধে প্রতিষ্ঠানটি বলেছে, আমরা এরইমধ্যে জানতে পেরেছি ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীরা সামান্য সহায়তা পেলেই অনেক দূর এগিয়ে যেতে পারবে। তাই আমরা একশ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ঋণ সহায়তার ঘোষণা দিয়েছি। বিজ্ঞাপন দেয়া এবং নগদ অর্থ এই দুই ভাগে দেয়া হচ্ছে।

ফেসবুক জানিয়েছে, ৩০টিরও বেশি দেশে ৩০ হাজার ব্যবসায় এই সহায়তা দেয়া হচ্ছে। তবে এই ত্রিশ দেশের তালিকায় নাম নেই এমন দেশ থেকেও সহায়তার জন্য আবেদন করা যাচ্ছে। তালিকায় না থাকা দেশের ব্যবসায়ীদের আবেদনও বিবেচনা করছে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ।

তবে ফেসবুকের অর্থ সহায়তা পেতে ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীদের বেশ কিছু শর্ত মানতে হবে। শর্তগুলো হল-

* অন্তত ২ থেকে ৫০ জন কর্মী থাকতে হবে।

* ব্যবসার বয়স হতে হবে কমপক্ষে এক বছর।

* করোনার কারণে ব্যবসা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে এমন প্রমাণ থাকতে হবে।

* এমন যোগাযোগ ব্যবস্থা থাকতে হবে যাতে আপনার ব্যবসা সম্পর্কে ফেসবুক খোঁজ খবর রাখতে পারে।

* আবেদনের জন্য ফেসবুকে বিজনেস পেজ একটি ভেরিফাইড ই-মেইল থাকতে হবে।

* ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের নির্দিষ্ট কার্যালয় থাকতে হবে।

* শুধুমাত্র অনলাইনে কার্যক্রম থাকলে আবেদন গ্রহণযোগ্য হবে না।

* ব্যবসার লাইসেন্স থাকতে হবে।

* অফিসিয়াল রেজিস্ট্রেশন থাকতে হবে।

* অংশীদারি ব্যবসার ক্ষেত্রে পার্টনারশিপ লাইসেন্স থাকতে হবে।

যেভাবে ব্যবহার করা যাবে ফেসবুকে অর্থ:

একটি প্রতিষ্ঠান সর্বোচ্চ ৫ হাজার মার্কিন ডলার পর্যন্ত পাবে। ফেসবুকের এই অর্থ ব্যবহার করা যাবে ব্যবসায়িক কার্যক্রম আরও শক্তিশালী করার জন্য। ব্যবসায় প্রতিষ্ঠান পরিচালনার জন্য দোকান ভাড়া প্রদান, ক্রেতাদের সঙ্গে যোগাযোগে খরচ করা যাবে।

এর আওতায় মার্কিন ও কানাডার গণমাধ্যমও রয়েছে। এ দুই দেশের গণমাধ্যম চাইলে এই ঋণ সহায়তা নিতে পারবে।

আবেদন এবং অর্থসহায়তা সংক্রান্ত কোনো তথ্যের জন্য ই-মেইল করা যাবে। আবেদনের জন্য ফেসবুকে বিজনেস পেজ ও একটি ভেরিফাইড ই-মেইল থাকতে হবে। আবেদন করতে হবে পাঁচটি ধাপে, কিছু প্রশ্নের উত্তর দেয়া ও ডকুমেন্টস প্রদানের মাধ্যমে। এ বিষয়ে বিস্তারিত একটি ভিডিও শেয়ার করেছে ফেসবুক।

You may also like

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More